[gtranslate]

ময়মনসিংহে জোড়াখুনের মুলহোতাদ্বয় গ্রেফতার : আদালতে স্বিকারোক্তি


প্রাচেস্টা নিউজ প্রকাশের সময় : ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২৩, ৩:০০ অপরাহ্ণ / ২১
ময়মনসিংহে জোড়াখুনের মুলহোতাদ্বয় গ্রেফতার : আদালতে স্বিকারোক্তি

গোলাম কিবরিয়া পলাশ, ময়মনসিংহঃ

ময়মনসিংহে সদর উপজেলার চুরখাই এলাকার জোড়া খুনের মুলহোতাদ্বয়কে গ্রেফতার করেছে কোতোয়ালী মডেল থানা পুলিশ। আজ মঙ্গলবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ তারিখ সকাল পর্যন্ত একটানা অভিযান চালিয়ে খুলনার সোনাডাঙ্গা ও রাজধানীর মোহাম্মদপুর বছিলা বস্তি থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে তাদের তথ্য মতে হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে।  গ্রেফতারকৃতরা হলো, জাহাবুব সরকার জাফর ও মাহাবুর। এর আগে এ হত্যাকান্ডে আরো চারজনকে গ্রেফতার করা হয়। কোতোয়ালী মডেল থানার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহিনুল ইসলাম ফকির আজ বুধবার প্রেস ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান।অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরো বলেন, গত এক ফেব্রুয়ারী জমি মাপঝোককে কেন্দ্র করে জেলা সদরের চুরখাই এলাকায় পিতা-পুত্রকে পিটিয়ে ও ছুরিকাঘাত করে হত্যা করে। এ সময় আরো চারজন গুরুতর হয়। এ ঘটনায় কোতোয়ালী মডেল থানায় ৭ জনকে আসামী করে নিহতের ছেলে রিফাত বাদী হয়ে মামলা নং- ৬, তাং- ০৩/০২/২০২৩ ইং, ধারা-১৪৩/৪৪৭/৩০২/৩২৩/৩২৬/৩০৭/১১৪/৫০৬ (২)/৩৪ পেনাল কোড দায়ের করে।অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরো বলেন, মামলাটি কোতোয়ালী মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক অপারেশন ওয়াজেদ আলী তদন্ত করছেন। এর আগে কামাল উদ্দিন ওরফে কামাল ড্রাইভার, রিয়াদ, মোঃ নাইম হোসেন ও কামাল ড্রাইভারের স্ত্রী জাহানারাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশ সুপার মাছুম আহাম্মদ ভুঞা এর নির্দেশে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহিনুল ইসলাম ফকিরের তত্ত্ববধানে অফিসার ইনচার্জ শাহ কামাল আকন্দের তদারকিতে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ওয়াজেদ আলী দেশের বিভিন্ন স্থানে অভিযান পরিচালনা করে। তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে তদন্ত কর্মকর্তা মঙ্গলবার অভিযান পরিচালনা করে খুলনার সোনাডাঙ্গা থেকে জাহাবুব সরকার জাফর এবং ঢাকার মোহাম্মদপুর বছিলা বস্তি থেকে মাহাবুরকে গ্রেফতার করে। পরে তাদের দেখানো মতে হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত ছুরি উদ্ধার করে পুলিশ। ব্রিফিংকালে কোতোয়ালী মডেল থানার ওসি শাহ কামাল আকন্দ, পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) ফারুক হোসেন ও পুলিশ পরিদর্শক ওয়াজেদ আলী উপস্থিত ছিলেন।তদন্তকারী কর্মকর্তা জানান, আজনবুধবার জাহাবুব সরকার জাফরকে আদালতে পাঠানো হলে সে ১৬৪ ধারায় স্বিকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছে। এছাড়া মাহাবুরকে সাতদিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ। এর আগে কামাল উদ্দিন ওরফে কামাল ড্রাইভার আদালতে স্বিকারোক্তি মুলক জানবন্দি দেয়।