[gtranslate]

পিরোজপুর সদরের টোনা ইউনিয়নে মসজিদে বসে ইফতারের পূর্বে কুপিয়ে যখম -১।


প্রাচেস্টা নিউজ প্রকাশের সময় : এপ্রিল ১৯, ২০২৩, ১২:২৯ অপরাহ্ণ / ২৩
পিরোজপুর সদরের টোনা ইউনিয়নে মসজিদে বসে ইফতারের পূর্বে কুপিয়ে যখম -১।

পিরোজপুর প্রতিনিধিঃ

গতকাল (১৮ এপ্রিল) মঙ্গলবার ৫নং টোনা ইউনিয়নের পান্তাডুবি গ্রামে মোঃ শহিদুল ইসলাম সিকদার নিজ বাড়ির মসজিদে ইফতারি করতে গেলে পূর্ব শত্রুতার জেরে মোঃ চাঁন ধরণী,বাক বিতন্ড শুরু করেন,ইফতারী শেষ হতেই মোঃ শহিদুল ইসলাম কিছু বুঝে ওঠার পূর্বেই পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে তার উপর মসজিদের ভীতরেই হামলা শুরু করে চাঁন বাহিনী।

জানা যায় চাঁন ধরনী সাবেক মেম্বার ছিলেন।হামলা কারী আরো একজন বতর্মান মেম্বার তরিকুল ধরানী,ও স্বজল ধরানী,বাবু,আশিক ধরানী সহ আরও কয়েক জন।

 হামলা কারীরা এলাকায় প্রভাবশালী হওয়ায় কেউই ভয়ে কথা বলে না। জনাব শহিদুল ইসলাম এই প্রতিবেদককে বলেন হামলাকারীরা চাপাটি,চাইনিজ কুড়াল,ও অন্যান্য অস্ত্রশস্ত্রসহ তার উপরে হামলা করে, জনাব শহিদুল ইসলামের মাথায় কয়েকটি কোপ দেয়, তিনি জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় তার আত্মীয়-স্বজনরা পিরোজপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

 জনাব শহিদুল ইসলাম জানান ৯৯৯ এ কল করলেও পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়নি,পরবর্তীতে তাকে ফোন করে কোথায় আছেন তা জানতে চান পুলিশ। ততক্ষণে শহিদুল ইসলাম কে হাসপাতলে রক্তাক্ত অবস্থায় নিয়ে আসেন তার আত্মীয়স্বজন।

পিরোজপুর সদর হাসপাতালের আরএম সাংবাদিকদের এ ব্যাপারে বলেন শহিদুল ইসলাম এর মাথায় গুরুতর কোপের চিহ্ন রয়েছে,সাতটি সেলাই করা হয়েছে,বর্তমানে চিকিৎসাধীন আছে। পিরোজপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জনাব আ,জ,ম মাসুদুজ্জামান জানান আমরা অভিযোগ পেয়েছি,তদন্ত অনুযায়ী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে ।

পিরোজপুর সংবাদদাতা:-