[gtranslate]

কবিতাঃ বসতভিটা 


প্রাচেস্টা নিউজ প্রকাশের সময় : এপ্রিল ১৩, ২০২৩, ৭:৫৪ অপরাহ্ণ / ৩০
কবিতাঃ বসতভিটা 

কবিতাঃ বসতভিটা 

লেখকঃ পলাশ কুমার রায়

তাংঃ ১৪-০৪- ২০২৩ ইং 

নিত্য নতুন সাজিয়ে যাই

মনের মত করে ,

চাক চিক্যের আদলে 

নানান রঙের ভিড়ে।

কেউবা গড়ি দালান কোটা 

বহুতল ভবন অট্টালিকা ,

বুঝিয়ে দেই কতটা ধনাঢ্য 

ধনকুবের রয় মনিমুক্তা ।

হিতাহিত ভুলে অহংকারী 

গুরুজনের নেইকো সম্মান !

মানুষ সবাই সকল মোরা 

সর্বদা করে যাই ব্যবধান ।

অধিকাংশ মানুষ দিনমজুরি 

পেটপুরে খাবার আঁশে ,

পরম আনন্দে দিন কাটায়

পরিবারের সান্নিধ্যে এসে ।

দেখো তাহার স্বাধের বাড়ি 

তবুও নেই তো সুখে ,

অশান্তির অনল গ্রাস করেছে

ওই অর্থের পিছনে ছুটে ।

উপার্জন যেথা অবৈধ হয়

অনেক অর্থের পাহাড় ,

ঘেউ ঘেউ কুকুর সম সে 

সময়েই তাকে বুঝিয়ে দেয় ।

যত সকল শান্তির খোঁজে 

অশান্তিকে কাছে ডাকে ,

নিষ্পাপ মনে পাপের রচনা 

জীবন পায় যত যন্ত্রণা ।

যেমন ছিল তেমনি রবে 

এই ধরিত্রীর বুকে ,

কোথা হবে শেষ ঠিকানা 

কখনো ভেবেছ কি মনে ?

সাড়ে তিন হাত যে ঠিকানা 

তবে কেন মিথ্যা বাসনা !

এই দু-দিনের পৃথিবীতে 

মিছে আমার আমার করে ।

কেটে যায় বেলা অবেলা 

নিত্য কর্মে মগ্ন হয়ে ,

বাদ যাবে না কেউ মন 

বিচার হবে শেষের দিনে ।

সেদিন তো আর লাভ হবে না 

বিফলে ঐ মিথ্যা নৈতিকতা ,

সকল কর্ম রবে পড়ে 

আহারে মোর বসত-ভিটা ।